প্রযুক্তি

২০২২ সালের সেরা ইন্টারনেট স্পিড টেস্ট অ্যাপ্লিকেশন

ইন্টারনেট স্পিড মিটার নির্দেশ করে ইন্টারনেটের স্পিড। ইন্টারনেট স্পিড সব সময় একই থাকে না। আপনি যদি ওয়াইফাই ব্যবহার করেন সেক্ষেত্রে আপনার ওয়াইফাই আপনার চাহিদামত সার্ভিস দিচ্ছে কিনা সেটিও জানতে পারবেন ইন্টারনেট স্পিড চেক করে। ইন্টারনেট স্পিড টেস্ট করে খুব সহজে জানতে পারবেন আপনার ইন্টারনেট স্পিড কেমন আছে। ইন্টারনেট এর স্পিড চেক করার কয়েকটি পদ্ধতি রয়েছে। ইন্টারনেটের স্পিড চেক করার একটি পদ্ধতি হলো অ্যাপ্লিকেশনের মাধ্যমে স্পিড টেস্ট। কয়েকটি জনপ্রিয় ওয়েবসাইট এবং অ্যাপ্লিকেশন এর মাধ্যমে খুব সহজেই আপনি ইন্টারনেটের স্পিড চেক করতে পারবেন। যে ওয়েবসাইট এবং অ্যাপ্লিকেশনগুলো ব্যবহার করে আপনার ইন্টারনেট স্পিড মিটার চেক করবেন সেগুলো জানতে পারবেন এখানে থেকে।

ইন্টারনেট স্পিড টেস্ট কি?

ইন্টারনেট স্পিড টেস্ট হলো এমন একটি পরীক্ষা যার মাধ্যমে আপনি জানতে পারবেন ইন্টারনেট স্পিড কত। আপনার ডিভাইস প্রতি সেকেন্ডে কত ডাউনলোড স্পিড এবং আপলোড স্পিড প্রদান করছে সেটি জানতে পারবেন। আবার ভালো মানের ওয়েবসাইট কিংবা অ্যাপ্লিকেশন গুলো ব্যবহার করে জানতে পারবেন ইন্টারনেট এর লেটেন্সি কত।

ডাউনলোড স্পিড

ইন্টারনেট স্পিড চেক করে জানা যায় ডাউনলোড স্পিড কত। ডাউনলোড স্পিড যত বেশি হবে আপনার ইন্টারনেট থেকে যে কোন ডাউনলোড ততো দ্রুত হবে। বড় ফাইল ডাউনলোড করার ক্ষেত্রে ডাউনলোড স্পিড অনেক বেশি প্রভাব ফেলে। ডাউনলোড স্পিড বাহিরে থেকে কোন ফাইল ডাউনলোড করতে সাহায্য করে। তাই আপনার ইন্টারনেটের ডাউনলোড স্পিড এর উপর নির্ভর করে কত দ্রুত আপনার ডাউনলোড প্রক্রিয়া সম্পন্ন হবে।

আপলোড স্পিড

 

আপলোড স্পিড আপনার কোন ফাইল সেন্ড করতে কিংবা অন্য কাউকে পাঠাতে অথবা ভিডিও কল এবং ফাইল ব্যাকআপ রাখতে সাহায্য করে। একটি ভালো আপলোড স্পিড আপনাকে খুবই দ্রুত যে কোন ইনফরমেশন ব্যাকআপ রাখতে সাহায্য করবে ।

লেটেন্সি

যারা নিয়মিত গেমিং করে কিংবা স্ট্রিমিং দেখে তারা লেটেন্সি সম্পর্কে ভালভাবে জানেন। লেটেন্সি যত কম হয় ততো দ্রুত কানেকশন কাজ করে। গেমিং এর সময় যত বেশি লেটেন্সি হয় গেমিং করতে ততো অসুবিধা হয়।

২০২২ সালের সেরা ইন্টারনেট স্পিড টেস্ট

 

Meteor

Meteor একটি অ্যাপ্লিকেশন। এই অ্যাপ্লিকেশনটি পাওয়া যায় অ্যাপেল স্টোর অথবা প্লে স্টোর থেকে। অ্যাপ্লিকেশনটি ডাউনলোড করে আপনার ইন্টারনেট স্পিড চেক করতে পারবেন। খুবই জনপ্রিয় এই স্পিড টেস্ট আপনাকে দেই অনেকটাই নির্ভুল ডিটেইল গ্রাফ। এছাড়াও এটি একটি সামারি দেয় যেটি আপনি দেখে বুঝতে পারবেন আপনার ইন্টারনেট স্পিড কত।

ওক্লা স্পীড টেস্ট

স্পিড টেস্ট এর জন্য সবচেয়ে জনপ্রিয় অ্যাপ্লিকেশন হলো ওক্লা। ওক্লা এর নাম শোনেননি এমন কম মানুষ আছেন। ওক্লা স্পীড টেস্ট আপনাকে দেয় সবচেয়ে নির্ভুল স্পিড টেস্ট। ওক্লা অ্যাপ্লিকেশন ঠিক অ্যাপেল স্টোর অথবা গুগল প্লে-ষ্টোরে এভেলেবেল আছে। এছাড়াও আপনি এর ওয়েব ভার্সন ব্যবহার করতে পারেন। ওক্লা আপলোড টাইম, ডাউনলোড টাইম ছাড়াও আরো কিছু ডিটেইলস তথ্য দেয় আপনার ইন্টারনেট স্পিড সম্পর্কে। তাই যেহেতু এর এপ্লিকেশন এবং ওয়েব ভার্সন দুটোই রয়েছে আপনি যেকোনো একটি ব্যবহার করে আপনার ইন্টারনেট স্পিড টেস্ট খুব সহজেই করতে পারবেন।

স্পিডটেস্ট মাস্টার

স্পিডটেস্ট মাস্টার ও একটি খুব জনপ্রিয় স্পিড টেস্ট। এটিতে খুব ভালো কিছু ফিচার রয়েছে এগুলো আপনাকে সাহায্য করে আপনার ইন্টারনেট স্পিড সম্পর্কে জানতে। স্পিডটেস্ট মাস্টার এভেলেবেল আছে অ্যাপেল স্টোর এবং গুগল প্লে স্টোরে। অ্যাপ্লিকেশন টি নামিয়ে আপনি জানতে পারবেন আপনার ইন্টারনেট স্পিড এর আপলোড টাইম, ডাউনলোড স্পিড। স্পিডটেস্ট মাস্টার এর সবচেয়ে ভালো ফিচার ফটো হল এটি ইংরেজি ছাড়াও আরো কয়েকটি ভাষাতে এভেলেবেল রয়েছে।

ক্লাউডফ্লেয়ার স্পিড টেস্ট

ক্লাউডফ্লেয়ার স্পিডটেস্ট অনেক বেশি ডিটেইল ভাবে আপলোড স্পিড, ডাউনলোড স্পিড এবং ল্যাটেন্সি গুলো দেখায়। ক্লাউডফ্লেয়ার স্পিড টেস্ট ব্যবহার করে সর্বনিম্ন এবং সর্বোচ্চ স্পিড জানা যায়। যারা ওয়েব সাইটের মাধ্যমে স্পিড টেস্ট করতে চান তাদের জন্য ক্লাউডফ্লেয়ার খুবই ভাল একটি অপশন। ক্লাউডফ্লেয়ার স্পিডটেস্ট ব্যবহার করা অনেকটাই সহজ কারণ অনেক সহজে বোঝা যায়।

Speedof.me

Speedof.me এটিও একটি ওয়েবসাইট এর মাধ্যমে স্পিড টেস্ট। Speedof.me ব্যবহার করে আপনি খুব সহজেই ডাউনলোড স্পিড এবং আপলোড স্পিড জেনে নিতে পারবেন। এছাড়াও speedof.me আপনাকে দেখাই real-time গ্রাফ যেটি আপনার ইন্টারনেট স্পিড মিটার কে নির্দেশ করে। Speedof.me ব্যবহার করে আপনার ইন্টারনেট স্পিড সম্পর্কে খুব ভালোভাবে জানতে পারবেন।

আপনার যদি ইন্টারনেট স্পিড টেস্ট করার দরকার পড়ে সেক্ষেত্রে অপরের অ্যাপ্লিকেশনগুলো অথবা ওয়েব ভার্শন গুলো ব্যবহার করতে পারবেন। অ্যাপ্লিকেশনগুলো ২০২২ সালের সেরা স্পিডটেস্ট অ্যাপ্লিকেশন নির্বাচিত হয়েছে। অ্যাপ্লিকেশনগুলোর তুমুল জনপ্রিয়তা এবং রেটিং অনুসারে আমরা এই অ্যাপ্লিকেশন অথবা ওয়েব সাইটগুলো নির্বাচিত করেছি। তবে এক্ষেত্রে কোন সিরিয়াল নেই। অ্যাপ্লিকেশনগুলো এবং ওয়েব ভার্সন গুলো ব্যবহার করে আপনি মোবাইলেও খুব সহজেই স্পিড টেস্ট করতে পারবেন। আপনার ওয়াইফাই প্রোভাইডার যদি আপনাকে সঠিক ওয়াইফাই স্পিড প্রদান না করে সে ক্ষেত্রে আপনি তাদের জানাতে পারেন এই প্রক্রিয়ায় ওয়াইফাই স্পিড টেস্ট করে।

 
আরো দেখুনঃ  অ্যান্ড্রয়েড ফোনে ইন্টারনেটের স্পিড চেক করার পদ্ধতি - জেনে নিন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button